ঢাকা, বুধবার, ২৫ এপ্রিল ২০১৮, ১২ বৈশাখ ১৪২৫

কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেললাইনের কাজ শুরু ফেব্রুয়ারিতে

http://www.pbd.news/whole-country/32196/কুলাউড়া-শাহবাজপুর-রেললাইনের-কাজ-শুরু-ফেব্রুয়ারিতে
BYএম. এ. কাইয়ুম, মৌলভীবাজার
প্রকাশ:  ১৩ জানুয়ারি ২০১৮, ২৩:৪৫

প্রিন্ট দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর আগামী ফেব্রুয়ারি মাসেই শুরু হচ্ছে ভারত-বাংলাদেশের রেলওয়ে রুটের কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেললাইনের কাজ। এরআগে বারবার কাজের তারিখ নির্ধারণ করা হলেও এবার পূর্বপশ্চিমকে সরাসরি এই দিনক্ষণের কথা জানালেন বাংলাদেশ রেলওয়ে সেকশনের পশ্চিমাঞ্চলের জিএম মো. আব্দুল হাই। এর আগে মৌলভীবাজারের কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেললাইনের কাজ পরির্দশণ করলেন বাংলাদেশ রেলওয়ে পশ্চিমাঞ্চলের জিএম মো. আব্দুল হাই। তিনি সিলেট হয়ে বড়লেখার শাহবাজপুর রেলওয়ে স্টেশনের সার্বিক অবস্থা পর্যবেক্ষণ করে কুলাউড়া রেলওয়ে স্টেশনে আসেন। শনিবার (১৩ জানুয়ারি) সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত তিনি এখানে অবস্থান করেন। পরে কুলাউড়ায় কর্মরত সাংবাদিকদের সাথে সংক্ষিপ্ত বৈঠকে মিলিত হোন। এসময় সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। তিনি বলেন, বহুল কাক্ষ্মিত কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেল সেকশনের কাজ আগামী মাস (ফেব্রুয়ারি) মাসে চালু হবে। ইতিমধ্যে এসংক্রান্ত সকল কাগজ পত্রাদির কাজ সম্পাদন হয়ে গেছে। এখন শুধু মানুষ স্বশরীরে এসে কাজ শুরু করবে। তিনি বলেন, ভারতের একটি কোম্পানী এই কাজের দায়িত্ব পেয়েছে। একটি প্রাইভেট ব্যাংক ও বাংলাদেশ সরকারের যৌথ অর্থায়নে এই কাজ সম্পাদিত হবে। এই রেললাইনের প্রকৃতি হবে ডুয়েল গেজ। তবে এটা ব্রড গেজ এ রুপান্তির করা যাবে। তাছাড়া এই রুটে ঘন্টায় ১০০ কিলোমিটার বেগে ট্রেন চলাচল করবে। ভারত-বাংলাদেশের এই রুটে মালবাহী ট্রেন ছাড়াও যাত্রীবাহী ট্রেন যাতায়াত করবে। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, কুলাউড়া স্টেশনের যাত্রীদের তুলনায় ট্রেনের টিকেট সংখ্যা অপ্রতুল আমি জেনেছি। বিষয়টি খতিয়ে দেখবো। এবং কুলাউড়ার টিকেট সংখ্যা বাড়ানোর জন্য ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। এসময় উনার সফরসঙ্গী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেলসেকশনের পিডি তানভিরুল ইসলাম, এমসিআইপিএস আহসান জাবির সহ কুলাউড়া রেলওয়ে কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ।