ঢাকা, শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮, ১ পৌষ ১৪২৬

ইউনিক হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টের এজিএম : ২২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন

http://dainikamadershomoy.com/economy/170706/ইউনিক-হোটেল-অ্যান্ড-রিসোর্টের-এজিএম--২২-শতাংশ-নগদ-লভ্যাংশ-অনুমোদন
BY  নিজস্ব প্রতিবেদক ০৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ২০:৩৩ | অনলাইন সংস্করণ

পুঁজিবাজারে নিবন্ধিত প্রতিষ্ঠান ইউনিক হোটেল অ্যান্ড রিসোর্ট লিমিটেড শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ২২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন করেছে। আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর গুলশান ক্লাবে ১৭তম বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) শেয়ারহোল্ডারদের উপস্থিতিতে এ লভ্যাংশ অনুমোদন করা হয়।

এতে সভাপতিত্ব করেন কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারপারসন সেলিনা আলী। সভায় উপস্থিত ছিলেন কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহা. নূর আলী। সভায় শেয়ারহোল্ডাররা ২০১৭-১৮ সালের সমাপ্ত বছরের হিসাবের ভিত্তিতে ২২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন করেন।

সভায় শেয়ারহোল্ডারগণের উদ্দেশে প্রতিষ্ঠানের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহা. নূর আলী কোম্পানির বর্তমান ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, ‘হোলি আর্টিজেনে জঙ্গি হামলার পর নিরাপত্তা ইস্যুতে হোটেল ব্যবসায় প্রভাব পড়ে। এই সংকট অনেকটাই কেটে গেছে। ওয়েস্টিন হোটেলে বিদেশি অতিথিরা ফিরতে শুরু করেছেন। ফলে ব্যবসা ভালো হয়েছে। ইউনিক হোটেল অ্যান্ড রিসোর্ট কোম্পানি শুরু থেকেই ভালো লভ্যাংশ দিয়ে আসছে। গত ২০১৩ সালে ২৫ শতাংশ, ২০১৪ সালে ২০ শতাংশ, ২০১৫-১৬ অর্থবছরে ২২ শতাংশ, ২০১৬-১৭ অর্থবছরে ২০ শতাংশ সর্বশেষ গত অর্থবছরের জন্য ২২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেওয়া হয়েছে।’

সভায় কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারপারসন সেলিনা আলী বলেন, ‘স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও সুশাসনের মাধ্যম ইউনিক হোটেল অ্যান্ড রিসোর্ট কার্যক্রম চালাচ্ছে। নতুন নতুন কোম্পানি খোলা হচ্ছে। এতে আর্থিক পরিধি আরও বাড়ছে। স্বচ্ছতা ও সুশাসনের স্বীকৃতি স্বরুপ অনেক অ্যাওয়ার্ড পেয়েছি। বেস্ট বার্ষিক রিপোর্টের জন্য আইসিএবি কর্তৃক ‘সার্টিফিকেট অব মেরিট অ্যাওয়ার্ড, সাফা অ্যাওয়ার্ড, করপোরেট সুশাসনের জন্য আইসিএসবি কর্তৃক সিলভার অ্যাওয়ার্ড কয়েকবার অর্জন করেছে। দি ওয়েস্টিন হোটেল ওয়ার্ল্ড লাক্সারি অ্যাওয়ার্ড সাতবার এবং ওয়াল্ড স্পা আওয়ার্ড অর্জন করেছে পরপর দুবার।’

বার্ষিক সাধারণ সভায় বিপুল সংখ্যক শেয়ারহোল্ডারসহ উপস্থিত ছিলেন পরিচালক নাবিলা আলী, মো. খালেদ নূর, মোহাম্মদ মহসীন, গাজী মো. সাখাওয়াত হোসেন, চৌধুরী নাফিজ সারাফাত, স্বতন্ত্র পরিচালক রোটারিয়ান গোলাম মুস্তাফা এবং কোম্পানি সচিব মো. শরীফ হাসান এসিএস।

এ ছাড়া সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন সিএফও জনি কুমার গুপ্ত এফসিএ, মোহাম্মদ গোলাম সারওয়ার এফসিএ-সহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।