ঢাকা, সোমবার, ১৬ জুলাই ২০১৮, ১ শ্রাবণ ১৪২৬

রোজা রাখলে কি ত্বকের ক্ষতি হয়?

https://www.ntvbd.com/health/196053/রোজা-রাখলে-কি-ত্বকের-ক্ষতি-হয়
BYফিচার ডেস্ক
১৬ মে ২০১৮, ১৭:০৯

রমজান মাস আসছে। অনেকে ভাবেন, রোজা রাখলে ত্বকের ক্ষতি হয়। এ কথাটি কি সঠিক?

এ বিষয়ে এনটিভির নিয়মিত আয়োজন স্বাস্থ্য প্রতিদিন অনুষ্ঠানের ৩০৮৯তম পর্বে কথা বলেছেন ডা. তাওহীদা রহমান ইরিন। বর্তমানে তিনি শিওর সেল মেডিকেল ডার্মাটোলজি বিভাগের পরামর্শক হিসেবে কর্মরত। প্রশ্ন : রোজায় অনেকটা সময় ধরে না খেয়ে থাকতে হচ্ছে। এতে ত্বকের ওপর কি প্রভাব পড়ে? উত্তর : গতানুগতির জীবনযাত্রার একটু পরিবর্তন হয় ত্যাগ ও সিয়ামের মাস রমজানে। দীর্ঘ সময় না খেয়ে থাকা, ঈদের একটি প্রস্তুতি, এর সঙ্গে ভ্যাপসা একটা আবহাওয়া, সব মিলিয়ে ত্বকের ওপর প্রভাব পড়ে। আমরা হয়ে যাই অবসাদগ্রস্ত। স্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস আর ত্বকের মূল কিছু যত্ন, এগুলো ঠিক রেখে যদি আমরা পরিকল্পনা করি, তাহলে আমাদের ত্বক থাকবে স্বাস্থ্যোজ্জ্বল। খুশি ও সুস্থ দেহ নিয়ে আমরা পালন করতে পারব ঈদুল ফিতর। প্রশ্ন : রোজায় দীর্ঘক্ষণ না খেয়ে থাকা, পানি না খেয়ে থাকা, এগুলোর কারণে কি ত্বকে ক্ষতিকর কোনো প্রভাব পড়তে পারে? উত্তর : আমাদের এখনকার যুগে সবচেয়ে প্রচলিত ধারা, যাকে আমরা বলি ইন্টারমিটেন ফাস্টিং। ইন্টারমিটেন ফাস্টিংয়ে ১২/১৪ ঘণ্টার একটি খাবারের বিরতি থাকে। এখানে শরীরের কিছু ইতিবাচক পরিবর্তন আসে। এগুলো শরীরের মৃত কোষ, বিষাক্ত পদার্থকে ধ্বংস করে ফেলে। রমজানে তাই হচ্ছে। ১২ থেকে ১৪ ঘণ্টার খাবারের বিরতি থেকে যাচ্ছে। সে ক্ষেত্রে সেহরি ও ইফতারের মেন্যু যদি সহজপাচ্য খাবার দিয়ে সাজিয়ে রাখি, আমাদের শরীরের জন্য কিন্তু সেটি ইতিবাচক দিক নিয়ে আসবে। ইন্টারমিটেন ফাস্টিং রমজানে আমরা খুব সুন্দরভাবে করতে পারছি। এর মানে যেই ক্ষতিকর প্রভাবের আশঙ্কায় অনেকে রোজা রাখতে চান না, তাঁদের জন্য কিন্তু আশার বিষয় রয়েছে। এ আশঙ্কা থেকে তাঁদের আমরা দুশ্চিন্তামুক্ত করছি। এর মানে রোজাতে তাঁদের ত্বকের ওপর ক্ষতিকর প্রভাব তো পড়েই না, বরং উপকার হয়।