ঢাকা, সোমবার, ২২ জুলাই ২০১৯, ৭ শ্রাবণ ১৪২৭

ঘরে কিশোরীর লাশ, দেয়ালে বাবা-মাকে দায়ী করে লেখা

http://bangla.bdnews24.com/samagrabangladesh/article1632549.bdnews
BY  সাতক্ষীরা প্রতিনিধি,  বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published: 13 Jun 2019 01:17 AM BdST Updated: 13 Jun 2019 01:17 AM BdST

শ্যামনগরের ঈশ্বরীপুর ইউনিয়নের শ্রীফলকাটি গ্রামের এই কিশোরীর নাম খাদিজা খাতুন (১২)। তারা বাবা হতদরিদ্র দিনমজুর নজরুল ইসলাম।

স্থানীয় একটি মাদ্রাসার ছাত্রী খাদিজা অনেকদিন থেকে মৃগী রোগে ভুগছিলেন বলে তার স্বজনরা পুলিশকে জানিয়েছে।

শ্যামনগর থানার ওসি মো. হাবিল হোসেন বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, বুধবার বিকাল ৪টার দিকে খাদিজাদের ঘর থেকে তার  লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

তিনি বলেন, “নিজের ঘরের বাঁশের আড়ায় ওড়না পেঁচানো অবস্থায় ছিল লাশটি। শরীরে কোনো ধরনের আঘাত ও ক্ষতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি।”

জীর্ণ ওই কুটিরের দেয়ালে চক দিয়ে লেখা ছিল- ‘মা বাবার জন্য/ আমি জীবন দিয়েচি/ এই মা-বাবা কষ্ট দেতিচি/ আমার মা বাবা খারাপ’।

“লেখাটি দেখে রহস্যের সৃষ্টি হয়েছে,” বলেন ঈশ্বরীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এডভোকেট শোকর আলী।

ওই ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আব্দুস সোবহান ঢালী বলেন, “নজরুল অত্যন্ত দরিদ্র দিনমজুর, তার স্ত্রীও দিনমজুর। নজরুল দিনমজুরের কাজে সারাদিন বাইরে ও নজরুলের স্ত্রী হালিমা খাতুন সকাল থেকে বাবার বাড়িতে ছিল। ফলে মৃত্যুর কারণ নিয়ে রহস্য সৃষ্টি হয়েছে।

“দেয়ালের লেখাটিও খাদিজার কি না, তা নিশ্চিত করতে পারেনি কেউ।”

ওসি বলেন, “মৃত্যুর কারণ অনুসন্ধানে লাশটি ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। পুলিশও তদন্ত করছে।”

এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে বলে জানান তিনি।