ঢাকা, শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৪ আশ্বিন ১৪২৭

হ্যালো ডক্টরের সহায়তায় এ এম জেড হাসপাতালে টেলিমেডিসিন চালু

https://www.dhakatimes24.com/2020/08/11/178715/হ্যালো-ডক্টরের-সহায়তায়-এ-এম-জেড-হাসপাতালে-টেলিমেডিসিন-চালু
BYতথ্যপ্রযুক্তি প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস

‘কোভিড-১৯’ ও অন্যান্য বিভাগের রোগীদের জন্য স্পেশালাইজড ভিডিও কন্সাল্টেশন সেবা চালু করল এ এম জেড হাসপাতাল। এ কার্যক্রমে টেলিমেডিসিন প্রযুক্তি সহায়তা দিচ্ছে ‘হ্যালো ডক্টর এশিয়া’। এ এম জেড হাসপাতাল ‘কোভিড-১৯’ রোগীদের চিকিৎসা ব্যবস্থার একটি বিশেষায়িত হাসপাতাল। ‘কোভিড-১৯’ রোগীদের ব্যবস্থাপনার সঙ্গে সম্পৃক্ত এমন চিকিৎসকদের নিয়ে ও অন্যান্য বিভাগের নিয়মিত বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের নিয়ে স্পেশালাইজড টেলিমেডিসিন কন্সাল্টেশন সেবা চালু করেছে হাসপাতালটি।

মৃদু ও নিম্ন মাঝারি লক্ষণ যুক্ত ‘কোভিড-১৯’ রোগী যাদের অন্যান্য শারীরিক সমস্যা যেমন ডায়াবেটিস, হাঁপানি, উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ ও বয়সজনিত সমস্যা নেই তাদের প্রাথমিক অবস্থায় বাসায় থেকে অভিজ্ঞ চিকিৎসকের তত্ত্বাবধানে টেলিমেডিসিনের মাধ্যমে চিকিৎসা ব্যবস্থাপনা করা সম্ভব। এক্ষেত্রে রোগীদের অবস্থা বিবেচনা করে পরবর্তী হাসপাতালে স্থানান্তর করার প্রয়োজনীয় পরামর্শ দেয়া যায়।

‘কোভিড-১৯’ রোগীদের নিয়ে কাজ করা ২০ জন অভিজ্ঞ চিকিৎসকের কাছ থেকে শিডিউল অনুযায়ী অনলাইনে অ্যাপয়েন্টমেন্ট নিয়ে ২৪ ঘন্টা ভিডিও কন্সাল্টেশনে স্বাস্থ্য পরামর্শ নিতে পারবেন আগ্রহীরা। করোনা মহামারীর এই সময়ে অনেকে ঝুঁকি বিবেচনায় সরাসরি চেম্বারে এসে চিকিৎসা সেবা নিতে পারছেন না, এমন পরিস্থিতিতে মেডিসিন, গাইনি, শিশু ও সার্জারি বিভাগের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা ভিডিও কন্সাল্টেশন সেবা পাওয়া যাবে সকাল ১০টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত।

স্পেশালাইজড টেলিমেডিসিন কন্সাল্টেশন সেবা পেতে আগ্রহীরা “Hello Doctor Asia” মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন https://bit.ly/hellodoctor-app লিঙ্ক থেকে ডাউনলোড করে বাসায় থেকে ভিডিও কন্সাল্টেশনের মাধ্যমে চিকিৎসা পরামর্শ নিতে পারবেন। এ ছাড়াও ০১৭০৮৫০০১২৫ হেল্প লাইনে ফোন করে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের অনলাইন কন্সাল্টেশনের শিডিউল নেয়া যাবে।

এ এম জেড হাসপাতাল লিমিটেডের পক্ষ থেকে প্রতিষ্ঠানটির অপারেশন ম্যানেজার ডা. সাল সালমা নুজহাত জানান, ‘কোভিড-১৯’ মহামারীর এ সময়ে করোনা আক্রান্ত কিংবা করোনায় সংক্রমণের সন্দেহভাজনরা মানসিক চাপে আছেন। সঠিক পরামর্শের অভাবে অনেকেই আতঙ্কিত হয়ে পরছেন। ঝুঁকি বিবেচনায় অনেকে স্বাস্থ্যগত সমস্যা থাকা সত্ত্বেও সরাসরি বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের সেবা নিতে পারছেন না। সার্বিক পরিস্থিতির বিবেচনায় এ এম জেড হাসপাতাল টেলিমেডিসিন কন্সাল্টেশন সেবা চালু করেছে।

হ্যালো ডক্টর এশিয়ার প্রধান পরিচালনা কর্মকর্তা মো. ফখরুল হাসান এবং এ এম জেড হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. জুলফিকার আলী বাবুল বলেন, ‘এ এম জেড হাসপাতালের টেলিমেডিসিন সেবার এ উদ্যোগ খুবই সময় উপযোগী । দেশের মানুষের জন্য বর্তমানে খুবই প্রয়োজনীয় এ সেবায় যুক্ত হতে পেরে আমরা আনন্দিত।’

(ঢাকাটাইমস/১১আগস্ট/এজেড)