ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৬

অভিযান চলছে: শুক্রবার রাতেও ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১১

http://www.ittefaq.com.bd/national/2018/05/26/158317.html
BYঅনলাইন ডেস্ক
২৬ মে, ২০১৮ ইং ০৯:৫৪ মিঃ

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর মাদকবিরোধী অভিযান অব্যাহত রয়েছে। প্রতিরাতেই বাড়ছে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহতের সংখ্যা। শুক্রবার রাতেও সারাদেশে ১১ জনের নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এরমধ্যে কুমিল্লা ও দিনাজপুরে দুইজন করে এবং চাঁদপুর, ময়মনসিংহ, জয়পুরহাট, বরগুনা, ফেনী, ঠাকুরগাঁও ও পাবনায় একজন করে নিহত হয়েছেন। এসব জায়গা থেকে বিপুল পরিমাণ মাদক উদ্ধারের কথা জানা গেছে। গত ৪ মে থেকে সারাদেশে মাদকবিরোধী অভিযানে নেমেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। পুলিশ ও র‌্যাবের সঙ্গে পৃথক ‘বন্দুকযুদ্ধে’ শনিবার দুপুর পর্যন্ত ৭৮ জনের নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। কুমিল্লা প্রতিনিধি জানান, পুলিশের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ বাবুল (৪০) এবং আলমাস (৩৬) নামের ২ মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে জেলার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার বাগরা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত বাবুল একই উপজেলার আশাবাড়ি গ্রামের আবদুল মালেকের পুত্র। তার বিরুদ্ধে ১৬টি মাদকের মামলা রয়েছে এবং আলমাস উপজেলার দক্ষিণ তেতাভূমি গ্রামের আফাজ উদ্দিনের পুত্র। তার বিরুদ্ধে আটটি মাদকের মামলা রয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ৪০ কেজি গাঁজা ও একটি বিদেশি পিস্তল উদ্ধারের কথা জানিয়েছে পুলিশ। দিনাজপুর প্রতিনিধি জানান, বীরগঞ্জে র‌্যাবের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ জেলার অন্যতম শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী ও অস্ত্রধারী শীর্ষ সন্ত্রাসী সাবদারুল (৪২) নিহত হয়েছেন। বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্যসহ বিদেশি অস্ত্র ও গোলাবারুদ উদ্ধার করে র‌্যাব। অন্যদিকে সদর উপজেলার রামসাগর এলাকায় দুই দল মাদক বিক্রেতার মধ্যে গোলাগুলিতে আব্দুস সালাম (৩৬) নামে একজন নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে পুলিশ। ময়মনসিংহ প্রতিনিধি জানান, ঈশ্বরগঞ্জের আঠাবাড়ি এলাকায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ শাহজাহান মিয়া (৩০) নামে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার রাত দেড়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ওসি বদরুল আলম খান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। নিহত শাহজাহান ঈশ্বরগঞ্জের বনগাও গ্রামের জসীম উদ্দিনের ছেলে। তার বিরুদ্ধে থানায় মাদক আইনে আটটি মামলা রয়েছে জানিয়েছে পুলিশ। জয়পুরহাট প্রতিনিধি জানান, জয়পুরহাটের পাঁচবিবি উপজেলায় মাদকবিরোধী অভিযানে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ রেন্টু মিয়া (৩৪) নামে এক মাদক বিক্রেতা নিহত হয়েছেন। নিহত রেন্টু উপজেলার উত্তর গোপালপুর গ্রামের আব্দুল জলিলের ছেলে। বরগুনা প্রতিনিধি জানান, সদর উপজেলার জাকির তবক গ্রামে দুই দল মাদক বিক্রেতার মধ্যে গোলাগুলিতে সবির হোসেন খান (৩৫) নামে একজনের মৃত্যু হয়েছে। ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে মাদক বিক্রি ও ভাগাভাগি নিয়ে মনির ও সবির হোসেনের মধ্যে বন্দুকযুদ্ধ হয়। খবর পেয়ে পুলিশ গেলে অনেকে পালিয়ে যায়। পরে রাস্তার পাশে সবিরের গুলিবিদ্ধ লাশ পাওয়া যায়। ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি জানান, সদর উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মোবারক হোসেন ওরফে কুট্টি (৪০) নামে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। তিনি জেলা শহরের রোড ছিট চিলারং গ্রামের শফির উদ্দিনের ছেলে। শুক্রবার রাত তিনটার দিকে এ ঘটনা ঘটে। পাবনা প্রতিনিধি জানান, সেখানে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আব্দুর রহমান (৪২) নামে একজন নিহত হয়েছেন। তিনি রহমান দোগাছী ইউনিয়নের কবিরপুর গ্রামের আছের উদ্দিন শেখের ছেলে। চাঁদপুর প্রতিনিধি জানান, কচুয়ায় পুলিশের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ বাবুল নামে এক ইয়াবা ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন।