ঢাকা, মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর ২০১৮, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

চকরিয়ায় মন্দিরের স্থাপনা ভাঙচুর

http://www.kalerkantho.com/online/2nd-capital/2018/10/19/693356
BYচকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি   

কক্সবাজারের চকরিয়ায় লোকনাথ মন্দিরের জায়গা দখলের উদ্দেশ্যে মন্দিরের স্থাপনা ভাঙচুর করা হয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে একজনকে আটক করে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের রংমহল গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

মন্দির কমিটির নেতা লব দাশগুপ্ত অভিযোগ করেন, স্থানীয় প্রভাবশালী জামাল হোছাইনের ইন্ধনে লোকনাথ মন্দির ও সেবাশ্রমের জায়গাসহ সামাজিক বনায়নের জায়গা দখল করতে আগেও হামলা চালানো হয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় আজও (বৃহস্পতিবার) হামলা চালানো হয়। এ সময় মন্দিরের সামনে তৈরি করা পূজারিদের বসার স্থান ভাঙচুর করা হয়। এমনকি পাশের এক হিন্দু পরিবারের মালিকানাধীন পানের বরজেরও ক্ষতি করা হয়।

ডুলাহাজারা ইউপি চেয়ারম্যান মো. নুরুল আমিন বলেন, দীর্ঘ ২০ বছর আগে রংমহল পাহাড়ি এলাকায় লোকনাথ মন্দির ও সেবাশ্রমটি গড়ে তোলা হয়। মূলত জায়গাটি দখলে নেওয়ার জন্যই এই হামলার ঘটনা ঘটেছে। বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও থানার ওসিকে জানানো হয়েছে।

এ ব্যাপারে চকরিয়া থানার ওসি মো. বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘মন্দিরে সামনের অংশে পূজারিদের বসার স্থান ভেঙে দেওয়ার খবর পেয়ে পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে যাই। এ সময় স্থানীয়দের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে আবদুল হামিদ ওরফে সোনা মিয়া নামের একজনকে আটক করি। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে যাতে এলাকায় অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে, সে জন্য পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা করা হবে।’