ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৮, ২৯ কার্তিক ১৪২৫

এশিয়া কাপের সেই আউট নিয়ে যা বললেন লিটন

http://www.kalerkantho.com/online/sport/2018/10/16/692320
BYকালের কণ্ঠ অনলাইন   

এমনিতেই ২০১৫ বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ মানেই তুলকালাম কাণ্ড। টানটান উত্তেজনা। দুবাইয়ে অনুষ্ঠিতএশিয়া কাপের ফাইনালেও এবার মুখোমুখি হয়েছিল দুই দল। যথারীতি আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে বিতর্কের। সেঞ্চুরিয়ান লিটন দাসকে যেভাবে আউট দিয়েছেন আম্পায়ার, তাতে বিতর্কের অবকাশ থাকে। এ নিয়ে অনেক লেখালেখি হলেও নিশ্চুপ ছিলেন লিটন। অবশেষে মুখ খুললেন তিনি।

ভারতের বিপক্ষে শেষ বলে হেরে যাওয়াওই ম্যাচে ওপেন করতে নেমে ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নেন লিটন। কিন্তু বাকী ব্যাটসম্যানরা সামিল হন আসা-যাওয়ার মিছিলে। এমন গুরুত্বপূর্ণ সময়ে দলের হাল ধরেছিলেন লিটন। ইনিংসের ৪১তম ওভারে সেই বিতর্কিত স্টাম্পিংয়ের শিকার হন তিনি। তিন মিনিটের বেশি সময় নিয়ে সিদ্ধান্ত দেন তৃতীয় আম্পায়ার। যে কারণে ক্রিকেটবিশ্বে বিতর্ক শুরু হয় যে, লিটনকে কেন 'বেনিফিট অব ডাউট' দেওয়া হলো না? এই ব্যাটসম্যান থাকলে আরও কিছু রান যোগ হতো দলের স্কোরবোর্ডে।

আজ মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুশীলন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে লিটন বললেন সেই আউট নিয়ে। তার ভাষায়, 'হ্যাঁ, আরও কিছুক্ষণ খেলতে পারলে ভালো হতো। সেটা দলের জন্য, আমার জন্যও। আর আউট নিয়ে কিছু বলার নেই। আম্পায়ার যেহেতু আউট দিয়েছেন, সেটা আউটই।'

৬ মাসের ব্যবধানেঘরোয়া ক্রিকেটে দুটি ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন। দুটিই দেশের হয়ে দ্রুততম। কিন্তু এসবের চেয়ে এশিয়া কাপের সেঞ্চুরিটা বড় লিটনের কাছে, 'আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সেঞ্চুরি বেশি গুরুত্বপূর্ণ। আপনারাও ভালো জানেন, আমি অনেক দিন ধরেই ব্যাকফুটে ছিলাম। ভালো করাটা আমার জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ ছিল। একই সঙ্গে এটা আমার জীবনের প্রথম আন্তর্জাতিক সেঞ্চুরি, আমার জন্য অনেক বড় ব্যাপার। তবে ওটা নিয়ে ভেবে এখন লাভ নেই। আমার কাছে প্রতিটি ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ।'