ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৮, ৩ কার্তিক ১৪২৬
BY  ক্রীড়া প্রতিবেদক ১৭ মে ২০১৮, ০০:০০ | আপডেট : ১৭ মে ২০১৮, ০৪:২৩ | অনলাইন সংস্করণ

তিনি আসছেন হোম অব ক্রিকেটে, এটা আগেই জানা গিয়েছিল। বেলা সাড়ে তিনটার কিছু সময় পর থেকেই তাকে বরণ করে নিতে বিসিবি কার্যালয়ের নিচে অপেক্ষায় ছিলেন সিইও নিজাম উদ্দিন চৌধুরী সুজন। বেশিক্ষণ অপেক্ষা করতে হয়নি তাকে। কিছু সময়ের মধ্যই সস্ত্রীক মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে হাজির হলেন গর্ডন গ্রিনিজ। বাংলাদেশের সাবেক কোচকে ফুলের তোড়া উপহার দিয়ে বরণ করে নিলেন বিসিবির সিইও।

গতকাল টাইগারদের অনুশীলন শুরু হয় সাড়ে তিনটা থেকে। এদিন জিমে সময় কাটিয়েছেন মাশরাফি, তামিম, মাহমুদউল্লাহ, মুশফিকরা। জাতীয় দলের ক্রিকেটাররাও জানতেন, গ্রিনিজ আসছেন। তারাও ছিলেন অপেক্ষায়! সাড়ে চারটার কিছু সময় পর নিজাম উদ্দিন চৌধুরী বিসিবি একাডেমি ভবনের মাঠে নিয়ে আসলেন গ্রিনিজকে। সেখানেই ক্যারিবিয়ান কিংবদন্তির সঙ্গে দেখা হলো টাইগারদের।

মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ফুলের তোড়া তুলে দিলেন গ্রিনিজের হাতে। মুশফিকুর রহিম দিলেন অটোগ্রাফসহ ক্যাপ। সবশেষ অটোগ্রাফসহ বাংলাদেশ দলের লাল-সবুজ জার্সি গ্রিনিজের হাতে তুলে দিলেন মাশরাফি বিন মুর্তজা। এর পর দলগত ফটোসেশন। তাতে অংশ নিলেন প্রাথমিক দলে ডাক পাওয়া ২৯ ক্রিকেটার। ছিলেন জাতীয় দলের স্ট্রেংথ ও কন্ডিশনিং কোচ মারিও ভিল্লাভারায়েনেও।

গ্রিনিজের কোচিংয়েই ১৯৯৭ আইসিসি ট্রফি জিতেছিল বাংলাদেশ। এরই মধ্য দিয়ে ১৯৯৯ বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেন টাইগাররা। অবশ্য বাংলাদেশের সঙ্গে তার সম্পর্কটা বেশিদিন টেকেনি। বিশ্বকাপ চলাকালেই তাকে বিদায় নিতে হয়। অমøমধুর সময় পার করলেও বাংলাদেশকে এখনো হৃদয়ে ধারণ করেন বলে জানান গ্রিনিজ।

এদিন টাইগারদের কিছু পরামর্শও দিয়েছেন গ্রিনিজ। সাফল্যের টোটকা বাতলে দেন তিনি। মাশরাফি-মুশফিকদের বলেন, ‘কঠোর অনুশীলনের বিকল্প নেই। তুমি যত বেশি পরিশ্রম করবে তত সফল হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। অনুশীলন না করলে সফল হওয়া যায় না।’ গ্রিনিজ বলেন, ‘বোলারকে নিয়মিত বোলিং অনুশীলন করতে হবে। ব্যাটসম্যানকে ব্যাটিং। যার যা কাজ তাকে মনোযোগ দিয়ে সে কাজটাই করতে হবে। খেলার প্রতি ফোকাস এবং কনসেনট্রেশন করতে হবে।’

টপ অর্ডারের ব্যাটসম্যানদের উদ্দেশে গ্রিনিজ বলেন, ‘শুরুতেই এগ্রেসিভ হওয়ার কিছু নেই। তুমি তোমার স্বাভাবিক খেলাটা খেল এবং রান তোলার চেষ্টা করো। ওপেনিংয়ে শুরুটা যে কোনো দলের জন্যই গুরুত্বপূর্ণ। কঠোর অনুশীলন করতে হবে। আশা করি তা হলে সফল হবে।’ জানতে চাইলেন সামনে বাংলাদেশ দলের কোনো সিরিজ রয়েছে কিনা। মাশরাফি জানালেন, আফগানিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ, এর পর ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর। আসন্ন এ দুই সিরিজের জন্যই বাংলাদেশ দলকে শুভকামনা জানালেন কিংবদন্তি ক্যারিবিয়ান ওপেনার গর্ডন গ্রিনিজ।