ঢাকা, শনিবার, ০৪ এপ্রিল ২০২০, ২১ চৈত্র ১৪২৬

ক্রেইগ আরভিনের মুখেও প্রশংসা বাংলাদেশের বোলারদের

https://www.jagonews24.com/sports/cricket/560890
BYবিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা প্রকাশিত: ১০:০৭ পিএম, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০

সেঞ্চুরি করার সন্তুষ্টি আছে অবশ্যই। দলকে সামনে এগিয়ে নেয়ার কাজটি সাধ্যমত করার একটা অন্যরকম চেষ্টা মোটামুটি সফল হওয়ায় খানিক তৃপ্তিও আছে। তবে তা ছাপিয়ে জিম্বাবুইয়ান অধিনায়ক ক্রেইগ আরভিন অবাক, শেরে বাংলার উইকেট দেখে।

তার ধারনা ছিল, পিচ আগের মতই স্লোলো থাকবে। বল থেমে আসবে। শটস খেলা কঠিন হবে। একটু আধটু টার্নও হবে। পাশাপাশি কিছু বল বিপজ্জনক ভাবে নিচেও থাকবে। কিন্তু মাঠে নেমে, বিশেষ করে ব্যাটিং করতে গিয়ে বিস্মিত জিম্বাবুইয়ান ক্যাপ্টেন- সে কি উইকেটের এ কি আচরণ? এ যে নতুন শেরেবাংলা!

আজ শনিবার প্রথম দিনের খেলা শেষে সংবাদ সম্মেলনে কথা বলতে এসে আরভিন যত না নিজের ব্যাটিং আর সেঞ্চুরি নিয়ে কথা বললেন, তার চেয়ে উইকেট নিয়েই তার চোখে, মুখে অনেক বেশি বিস্ময়!

উইকেট নিয়ে কথা বলতে গিয়ে প্রথমেই বলে উঠলেন, ‘আমরা উইকেট দেখে সত্যিই অবাক হয়েছি! উইকেট বেশ ভাল ছিল।’ অন্য সময়ের উইকেটের সাথে আজকের পিচের কোন মিল খুঁজে না পাওয়া আরভিন বলেন, ‘আমার মনে হয় এটা খুব ভাল ব্যাটিং উইকেট।’

শুধু উইকেটের আচরণে বিস্ময় প্রকাশই নয়, আরও একটি তাৎপর্য্যপূর্ণ কথা বলেছেন আরভিন। তার চোখে এ ম্যাচের উইকেট ভিন্ন। শেরে বাংলার পিচ অন্য সময় যেমন বোলিং সহায়ক ও কঠিন থাকে- তা নয়। বরং অনেকটাই ব্যাটিং সহায়ক।

তাই আরভিনের ধারনা, উইকেট অন্য যে কোন সময়ের চেয়ে ভাল, ব্যাট করাও অন্য সময়ের চেয়ে তূলনামুলক সহজ। তাই জিম্বাবুয়ান ক্যাপ্টেনের ধারনা, ‘আজ প্রথম দিনের খেলা শেষে বরং বাংলাদেশ খানিক এগিয়ে।’ তার ধারণা জিম্বাবুয়ে দুই থেকে তিন উইকেট বেশি হারিয়েছে।

বাংলাদেশের বোলারদের প্রশংসা করে আরভিন বলেন, ‘উইকেটে বোলারদের সহায়তা ছিল না তেমন; কিন্তু বাংলাদেশের বোলাররা ধারাবাহিকভাবে ভাল জায়গায় মানে টাইট লাইন ও লেন্থে বল করেছে।’

কিন্তু এমন টাইট বোলিংয়ের ভিতরেও তো আপনি সেঞ্চুরি করেছেন। সেটা কি করে সম্ভব? আরভিনের ব্যাখ্যা, `আসলে বাংলাদেশের বোলাররা খুব ভাল জায়গায় ক্রমাগত বোলিং করেছে। সে কারণে আমাকে অনেক বেশি ফোকাস থাকতে হয়েছে। আমি নিজেকে মেলে ধরতে সর্বাত্মক চেষ্টা করেছি। অপেক্ষায় থেকেছি কখন আলগা বল আসবে। আমি সেই সব আলগা বল থেকে যতটা সম্ভব রান বাড়িয়ে নিতে চেষ্টা করেছি।’

প্রথম দিনের মূল্যায়ন করতে গিয়ে আরভিনের মনে হয়েছে বাংলাদেশ খানিকটা এগিয়ে। ‘আমরা মনে হয় আরও কিছু রান করা উচিৎ ছিল। কিন্তু তা পারিনি। বাংলাদেশের বোলাররা খুব মাপা বোলিং করে আমাদের ঠান্ডা রেখেছে।’

এআরবি/আইএইচএস/জেআইএম