ঢাকা, বুধবার, ১৯ ডিসেম্বর ২০১৮, ৫ পৌষ ১৪২৬
BYআন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস

মালির কেন্দ্রীয় অঞ্চলের একটি বিচ্ছিন্ন গ্রামে মিলিশিয়াদের হামলায় ৩৬জন সাধারণ নাগরিক নিহত হয়েছেন জানিয়েছে দেশটির একটি জাতিগত গোষ্ঠি। যদিও দেশটির সরকার দাবি করেছে নিহতের সংখ্যা ১৬।

শনিবার দেশটির কৌমাগা নামক বিচ্ছিন্ন ওই গ্রামে গুলি করতে করতে প্রবেশ করে মিলিশিয়ারা। সেসময়ই এ হতাহতের ঘটনা ঘটে। এরপর রবিবার পশ্চিম আফ্রিকার বৃহত্তম জাতিগত সংগঠন ফুলানি এসোসিয়েশনের প্রধান ৩৬ জন নিহতের খবর জানান। খবর ওয়াশিংটন পোস্টের।

হামলার পর এখন পর্যন্ত অন্তত ১০ গ্রামবাসী নিখোঁজ রয়েছে বলে জানিয়েছে বিবিসি। এছাড়া পুড়ে যাওয়ার কারণে অনেক মৃতদেহ সনাক্ত করাও যায়নি।

গত তিন বছরে মালিতে ফুলানি, বামবারা, ডোজোন জনগোষ্ঠির মধ্যে জাতিগত দাঙ্গা ক্রমাগত বৃদ্ধি পেয়েছে। এই দাঙ্গার মূল কারণ জমি ও পানির উৎস দখল নিয়ে। দাঙ্গা বন্ধে মালির নিরাপত্তা বাহিনী গণগ্রেপ্তার অব্যাহত রাখলেও কোনভাবেই সহিংসতা থামানো যাচ্ছে না।

ঢাকাটাইমস/২৫জুন/একে