ঢাকা, বুধবার, ০৪ আগস্ট ২০২১, ২০ শ্রাবণ ১৪২৭
BYঅর্থনৈতিক প্রতিবেদক,ঢাকাটাইমস

সপ্তাহের ব্যবধানে দেশের দুই পুঁজিবাজারে লেনদেনের পাশাপাশি বেড়েছে সবগুলো সূচক। বেড়েছে বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট দর। আলোচ্য সময়ে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) লেনদেন হয়েছে ১২ হাজার কোটি টাকারও বেশি। সপ্তাহটিতে দেশের দুই পুঁজিবাজারে মূলধন বেড়েছে দুই হাজার ৪৮৫ কোটি টাকা।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জ (সিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে লেনদেন শুরুর আগে ডিএসইতে বাজার মূলধন ছিল ৫ লাখ আট হাজার ৯৪৭ কোটি ৪৫ লাখ ৭৪ হাজার ৮৬২ টাকা। আর সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস লেনদেন শেষে বাজার মূলধন দাঁড়ায় ৫ লাখ নয় হাজার ৯৩৭ কোটি ৭৭ লাখ ৪৪৯ টাকায়। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে বাজার মূলধন বেড়েছে ৯৯০ কোটি ৩১ লাখ ২৫ হাজার ৫৮৭ টাকা।

জানা গেছে, সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে লেনদেন শুরুর আগে সিএসইতে বাজার মূলধন ছিল চার লাখ ৩৩ হাজার ৭৩৯ কোটি ১৮ লাখ টাকা। আর সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস লেনদেন শেষে বাজার মূলধন দাঁড়ায় চার লাখ ৩৫ হাজার ২৩৪ কোটি ৭৬ লাখ ১০ হাজার টাকায়। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে সিএসইতে বাজার মূলধন বেড়েছে এক কোটি ৪৯৫ লাখ ৫৭ হাজার টাকা।

জানা গেছে, বিদায়ী সপ্তাহে পাঁচ কার্যদিবসে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) মোট লেনদেন হয়েছে ১২ হাজার ১৮৮ কোটি ২৩ লাখ ৯৯ হাজার ৮৪৫ টাকার লেনদেন হয়েছে। যা আগের সপ্তাহ থেকে এক হাজার ৯২৯ কোটি ৫৮ লাখ ৩০ হাজার ৩৩৬ টাকা বা ১৮.৮১ শতাংশ বেশি হয়েছে। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ১০ হাজার ২৫৮ কোটি ৬৫ লাখ ৬৯ হাজার ৫০৯ টাকার।

ডিএসইতে বিদায়ী সপ্তাহে গড় লেনদেন হয়েছে দুই হাজার ৪৩৭ কোটি ৬৪ লাখ ৭৯ হাজার ৯৬৯ টাকার। আগের সপ্তাহে গড় লেনদেন হয়েছিল দুই হাজার ৫১ কোটি ৭৩ লাখ ১৩ হাজার ৯০২ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে গড় লেনদেন বেড়েছে ৩৮৫ কোটি ৯১ লাখ ৬৬ হাজার ৬৭ টাকা বা ১৮.৮১ শতাংশ।

সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ১৩ পয়েন্ট বা ০.২২ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ৬৬ পয়েন্টে। অপর সূচকগুলোর মধ্যে শরিয়াহ সূচক ছয় পয়েন্ট বা ০.৪৯ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়ে এক হাজার ২৯৯ পয়েন্টে এবং ডিএসই-৩০ সূচক এক পয়েন্ট বা ০.০৭ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে দুই হাজার ২০৫ পয়েন্টে।

বিদায়ী সপ্তাহে ডিএসইতে মোট ৩৭৫টি প্রতিষ্ঠান শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দর বেড়েছে ২১১টির বা ৫৬.২৬ শতাংশের, কমেছে ১৪২টির বা ৩৭.৬৬ শতাংশের এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১৮টির বা ৪.৮০ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) বিদায়ী সপ্তাহে টাকার পরিমাণে লেনদেন হয়েছে ৫২৭ কোটি ৪৫ লাখ ৮৯ হাজার ২৫৩ টাকার। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ৩৭৮ কোটি ৩২ লাখ ৪২ হাজার ৭৩৪ টাকার। সপ্তাহের ব্যবধানে সিএসইতে লেনদেন কমেছে ১৪৯ কোটি ১৩ লাখ ৪৬ হাজার ৫১৮ টাকা।

সপ্তাহটিতে সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৪২ পয়েন্ট বা ০.২৩ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৭ হাজার ৫৮৫ পয়েন্টে। সিএসইর অপর সূচকগুলোর মধ্যে সিএসসিএক্স ২০ পয়েন্ট বা ০.১৯ শতাংশ বেড়ে অবস্থান করছে ১০ হাজার ৫৯৪ পয়েন্টে। সিএসই-৩০ সূচক ২৮ পয়েন্ট বা ০.২১ শতাংশ বেড়ে অবস্থান করছে ১৩ হাজার ১১৮ পয়েন্টে। সিএসই-৫০ সূচক ১২ পয়েন্ট বা ০.১৯ শতাংশ কমে অবস্থান করছে এক হাজার ২৮৩ পয়েন্টে এবং সিএসআই ২২ পয়েন্ট বা ২.০৪ শতাংশ বেড়ে অবস্থান করছে এক হাজার ২৮৩ পয়েন্টে।

সপ্তাহজুড়ে সিএসইতে ৩৩৪টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ১৯৩টির বা ৫৭.৭৮ শতাংশের দর বেড়েছে, ১২৩টির বা ৩৬.৮২ শতাংশের কমেছে এবং ১৮টির বা ৫.৩৮ শতাংশের দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/১১জুন/এসআই)